রবিবার, মে ২৭

নবীজির বর্ণনার সঙ্গে মিলে যাচ্ছে সৌদি সংকট!

 

ইস্রাফিল হোসেন সুমন-

রাসূল সা. বর্ণিত একটি হাদীসের সংকটময় অবস্থার সাথে মিলে যাচ্ছে না তো এই সংকট?
সৌদিতে দুর্নীতি বিরোধী অভিযানে ১১জন রাজপুত্র, চারজন মন্ত্রী এবং প্রায় ডজন খানেক প্রাক্তন মন্ত্রীকে বন্দি করার পর সৌদি আরবসহ মুসলিমবিশ্বজুড়ে তৈরি হয়েছে তীব্র আলোড়ন। এর পর আরও কিছু ঘটনার মধ্য দিয়ে তীব্র আকার ধারণ করে সৌদি সঙ্কট।রাজ পরিবার বিভক্ত হওয়ার মতোও খবর পাওয়া গেছে।

হযরত ছওবান (রা.) থেকে বর্ণিত, আল্লাহর রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছেন, ‘তোমাদের ধনভাণ্ডারের (রাজত্বের জন্য) নিকট তিনজন বাদশাহর সন্তান যুদ্ধ করতে থাকবে। কিন্তু ধনভাণ্ডার (রাজত্ব) তাদের একজনেরও হস্তগত হবে না। তারপর পূর্ব দিক (খোরাসান) থেকে কতগুলো কালো পতাকাবাকী দল আত্মপ্রকাশ করবে। তারা তোমাদের সাথে এমন ঘোরতর লড়াই করবে, যেমনটি কোন সম্প্রদায় তাদের সঙ্গে লড়েনি।’

বর্ণনাকারী বলেন, ‘তারপর নবীজি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম আরও একটি বিষয় উল্লেখ করে বললেন, ‘তারপর আল্লাহর খলীফা মাহদির আবির্ভাব ঘটবে। তোমরা যখনই তাঁকে দেখবে, তাঁর হাতে বাইয়াত নেবে। যদি এজন্য তোমাদেরকে বরফের উপর দিয়ে হামাগুড়ি খেয়ে যেতে হয়, তবুও যাবে। সে হবে আল্লাহর খলীফা মাহদি।’ (সুনানে ইবনে মাজাহ হাদিস নং-৪০৮৪)
বর্তমান সৌদি রাজ পরিবারের সদস্যরা ৩ ভাগে বিভক্ত হয়ে গেছে। হাদীসের ভাষ্যমতে, তিনজনই বাদশার সন্তান। এই প্রিন্সরা এখন তিনটি গ্রুপে বিভক্ত। তারা হলেন- মুকরিন বিন আব্দুল আজিজ, মুহাম্মদ বিন নায়েফ, মুহাম্মদ বিন সালমান।
সৌদির এই সংকটময় অবস্থায় কী ঘটতে যাচ্ছে আমরা কেউই নিশ্চিত করে বলতে পারছি না। আমরাও এটাও নিশ্চিত করে বলতে পারছি না যে, এখনকার সংকটগুলো কী হাদিসে বর্ণিত সংকট?
প্রসঙ্গত, শনিবার এক বিশেষ আইনের বলে সৌদি যুবরাজ তথা দেশের ভবিষ্যৎ বাদশাহ মোহাম্মদ বিন সালমানকে দুর্নীতি দমন কমিটির প্রধান করা হয়৷ এরপরেই রবিবার রাতভর সৌদি রাজপরিবারের অন্দরে বিশাল অভিযান চালান তিনি৷ গ্রেফতার করা হয় ১১ জন যুবরাজকে৷ বন্দি করা হয়েছে, দেশের ন্যাশনাল গার্ড প্রধান ও নৌসেনা প্রধানকে৷

Comments

comments

Powered by Facebook Comments

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *