প্রচ্ছদ / কুমিল্লা ও নাঙ্গলকোট / নাঙ্গলকোটের সাতবাড়িয়ায় পল্লী চিকিৎসকের অবহেলায় গৃহবধূ মৃত্যুর অভিযোগ

নাঙ্গলকোটের সাতবাড়িয়ায় পল্লী চিকিৎসকের অবহেলায় গৃহবধূ মৃত্যুর অভিযোগ

সংবাদদাতা:- 

কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার সাতবাড়িয়া ইউনিয়নে পল্লী চিকিৎসকের অবহেলার কারণে তানজিলা আক্তার (২৩)নামে এক গৃহবধূর মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। গত ১৪ই অক্টোবর রোজ বুধবার ভোর ৪:৩০ এর দিকে ফেনী সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। জানা যায় এর আগের দিন রাত ১১:৩০ মিনিটের দিকে তানজিলা আক্তার বমি ও পেট ব্যাথা জনিত করণে গুরুতর অসুস্থতা বোধ করে। এমতাবস্থায় তাকে জরুরি ভিত্তিতে প্রাথমিক চিকিৎসার দেওয়ার প্রয়োজন পড়ে। কিন্তু এত রাতে বাড়ি থেকে হাসপাতাল অনেক দূরে হওয়ায় তার বাড়ির লোকজন তাদের গ্রামের পল্লী চিকিৎসকদের সাথে ফোনে যোগাযোগ করে। কিন্তু তারা সকলেই তাকে চিকিৎসা দিতে অস্বীকৃতি জানায়।যার ফলে রাতে অনেক ছোটাছুটি করেও তাকে কোন ধরনের প্রাথমিক চিকিৎসা দিতে পারে নি। সর্বশেষ সকাল বেলা তাকে হাসপাতালে নেওয়ার পথে সে মারা যায়।

তানজিলা আক্তারের বড় ভাই প্রবাসী মোবারক হাসান সি এন নিউজকে অভিযোগ করে বলেন, আমি রাতে আমার গ্রামের ৩/৪ জন ডাক্তারকে অনেক আকুতি করে বলেছিলাম,”আমার বোন মারা যাচ্ছে চিকিৎসার অভাবে,আপনারা একটু চিকিৎসার ব্যাবস্থা করেন”।কিন্তু তারা কেউই আমার ডাকে সাড়া দেয় নি।যার ফল স্বরুপ আজ আমার বোন এখন আমাদের মাঝে নেই। উনারা তখন আমাকে সাহায্য করলে হয়তো আমার বোনটিকে এইভাবে মরতে হতো না। তারাই আমার বোনের মৃত্যুর জন্য দ্বায়ী। আমি প্রশাসনের নিকট তাদের সকলকে বিচার চাই।

এছাড়াও চেক করুন

কুভিক সাংবাদিক সমিতির ১৩ সদস্য বিশিষ্ট নতুন কার্যনির্বাহী কমিটি ঘোষণা

ভিক্টোরিয়া কলেজ প্রতিনিধি: দক্ষিন-পূর্ব বাংলায় শ্রেষ্ঠ বিদ্যাপিঠ কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া সরকারি সাংবাদিক সমিতির (কুভিকসাস) ১৩ সদস্যবিশিষ্ট …